আজ [bangla_day], [english_date] ইংরেজী, [bangla_date] বাংলা, [hijri_date] হিজরী | www.pekuanews.com | A 24 Hours National News Portal

ENGLISH

ভয়ই পেয়ে গিয়েছিলেন মুশফিক!

৪৮তম ওভার শেষের ঘটনা। হঠাৎ পূর্ব গ্যালারির বেষ্টনী টপকে মাঠে ঢুকে পড়ল এক কিশোর। ঊর্ধ্বশ্বাসে দৌড়ে যেতে থাকল উইকেটের দিকে। তাকে ধরতে পেছন পেছন দৌড় দিলেন নিরাপত্তাকর্মীরাও।

কিশোর যেন বিস্কুট দৌড়ে নেমেছে, প্রথম তাকে হতেই হবে!

শেষ পর্যন্ত এ ‘দৌড় প্রতিযোগিতায়’ জয় হলো তারই।

কিশোরের লক্ষ্য, মুশফিকুর রহিমের কাছে যাবে, তাঁকে ছুঁয়ে দেখবে। তার চাওয়াটা পূরণ হয়েছে। মুশফিককে জড়িয়ে ধরেছে। চাওয়া পূরণ হওয়ায় কিশোর অনেক খুশি। কিন্তু খুশি নন বিসিবির নিরাপত্তাকর্মীরা। টেস্ট ম্যাচের মধ্যে মাঠে এভাবে দর্শক ঢুকে পড়ায় অনেকেই যে তাঁদের ব্যর্থতা খুঁজে পাবেন। ত্বরিতগতিতে তাই মাঠে ঢুকে পড়া ছেলেকে দ্রুত বের করে দেওয়া হলো। পাঠিয়ে দেওয়া হয় স্টেডিয়ামের বাইরে। কিশোরকে যখন বের করে আনা হচ্ছিল, সেটি দেখতে দর্শকদের কী আগ্রহ!

আকস্মিক মাঠে ঢুকে পড়া ছেলেটার নাম সাইফুল আলম অনিক, সপ্তম শ্রেণির ছাত্র। বাড়ি সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামের আশপাশেই। প্রথমে স্টেডিয়ামের প্রাচীর টপকে ভেতরে ঢুকেছে, সেখান থেকে এসেছে গ্যালারিতে। অতঃপর প্রায় ১০ ফুট উচ্চতার বেষ্টনী টপকে ঢুকে পড়েছে মাঠে। এভাবে একজন কিশোর দর্শক হুট করে ঢুকে পড়ায় শুরুতে ভয়ই পেয়েছিলেন মুশফিক। অবশ্য পরক্ষণে কিশোরকে কাছে টেনে নিয়েছেন। দলের প্রতিনিধি হয়ে আজ সংবাদ সম্মেলনে আসা আবু জায়েদ বর্ণনা করলেন ওই মুহূর্তের অভিজ্ঞতা, ‘মুশফিক ভাই তখন বলছিলেন, “আমি ভয় পেয়ে গেছিলাম রে!” ছেলেটা যখন ঢুকেছে, দেখলাম ও দৌড়ে আসছে। মুশফিক ভাইকে কী বলব, খুঁজে পাচ্ছিলাম না। মুশফিক ভাইয়ের কাছে যাচ্ছিল, নাকি মিরাজের কাছে যাচ্ছিল, সেটাও বুঝতে পারছিলাম না! মুশফিক ভাই ভয়ই পেয়ে গিয়েছিলেন।’

আবু জায়েদের কাছে সমর্থকদের এমন কাণ্ড–কীর্তি কখনো উপভোগ্য, কখনো উপভোগ্য নয়, ‘মাঝে মাঝে মনে হয় ভক্ত-সমর্থক থাকলে খুব ভালো। সিলেটে এসে যদি নিরিবিলি ঘুরতে পারি, তাহলে বেশি ভালো লাগে। তখন মনে হয় ভক্ত না থাকলেই ভালো।’
কিশোর দর্শক সাইফুল হয়তো না বুঝেই মাঠে ঢুকে পড়েছে। খেলাধুলায় এই দৃশ্য নতুন কিছু নয়। লিওনেল মেসি, ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো কিংবা ভারতের বিরাট কোহলিকেও এই অপ্রত্যাশিত ঘটনার মুখোমুখি হতে হয় মাঝেমধ্যে। বিদেশে কেন, এই বাংলাদেশেও এমন ঘটনা আগেও ঘটেছে। ২০১৬ সালের অক্টোবরে মিরপুরে আফগানিস্তানের বিপক্ষে সিরিজের শেষ ওয়ানডেতে মাশরাফি বিন মুর্তজাকে ছুঁয়ে দেখতে মেহেদি হাসান নামে এক ভক্ত ঢুকে পড়েছিলেন মাঠে। সেই ঘটনায় কম আলোড়ন তৈরি হয়নি। নিরাপত্তা ইস্যুতে তখন ইংল্যান্ড দলের বাংলাদেশ সফর নিয়ে নানা কথা হচ্ছিল। ঠিক এ সময় নিরাপত্তার জাল ফুঁড়ে দর্শকের মাঠে ঢুকে পড়া ইতিবাচক কিছু নয় বলে অনেক আলোচনা-সমালোচনাও হয়েছে।
এ মুহূর্তে নিরাপত্তাবিষয়ক কিছু না থাকলেও এভাবে দর্শক ঢুকে পড়াটা মোটেও ইতিবাচক কিছু নয়। খেলার বিঘ্ন ঘটানোর ব্যাপার তো আছেই, এতে আয়োজকদের চাপে পড়তে হয়, প্রশ্ন ওঠে নিরাপত্তা নিয়েও।

370 total views, 1 views today

Translate »